শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০১:০১ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
খাগড়াছড়ির চেঙ্গী নদীতে নিখোঁজের ৭ দিন পর শিশুর মরদেহ উদ্ধার “নতুন শক্তি নিয়ে জেগে উঠবে যুবলীগ” ইউসিবি ব্যাংক’র নতুন শাখা চালু খাগড়াছড়িতে “২ কোটি ১০ লাখ টাকার কৃষি ঋণ বিতরণ” প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরার অনুষ্ঠান বর্জন করেছে কর্মরত সাংবাদিকরা পাহারে চাঁদাবাজির অভয়ারণ্য স্থানীয় হাট-বাজার নিরুপায় জনগণ: অসহায় সরকার খাগড়াছড়ির গুইমারায় বাস ও কাভার্ড ভ্যানের সংঘর্ষে আহত ১০ এলজিইডি’র প্রকল্প বাস্তবাতয়নে ঠিকাদারের কাজে অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ গুইমারার বাইল্যাছড়িতে যুবকের আত্মহত্যা পাজেপ চেয়ারম্যানসহ শিক্ষা কর্মকর্তার স্কুল পরিদর্শন বাসদ নেতার মরদেহ উদ্ধার
পার্বত্য জেলায় পানীয় জলের তীব্র সংকট নিরসন খুবই জরুরী

পার্বত্য জেলায় পানীয় জলের তীব্র সংকট নিরসন খুবই জরুরী

নুরুল আলমঃ তিন পার্বত্য জেলায় পানীয় জলের তীব্র সংকট নিরসনে দীর্ঘমেয়াদী কার্যক্রম নিয়ে এগুতে হবে । তিন পার্বত্য জেলার বিভিন্ন এলাকায় পানীয় জলের তীব্র সংকট দেখা দিয়েছে । তা নিরসনে দীর্ঘমেয়াদী কার্যক্রম নিয়ে এগুতে হবে । বিশেষ করে রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলার কাপ্তাই , ওয়াহ্মা , চিত্মরম , রাজস্থলীর বাঙ্গালহালিয়া , কাউখালী উপজেলা , বাঘাইছড়ি , রােয়াংছড়ির সাংকিং পাড়া , খাগড়াছড়ি জেলার দীঘিনালার সীমানা পাড়া , ন – মাইল , জোড়াব্রিজ , হাজাছড়া ,
রির্জাবছড়া এলাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় পানির সমস্যা তীব্র ভাবে দেখা দিয়েছে । এটা নতুন কোন ঘটনা নয় । প্রতিবছর এধরণের সমস্যা দেখা দেয় । এবার সমস্যা প্রকট আকার ধারণ করছে । স্থানীয় এনজিও গ্রীনহীল কিছু কিছু এলাকায় পানীয় জল সরবরাহের ব্যবস্থা করছিল । বর্তমান অবস্থায় কিছু করেছে কিনা জানা যায়নি । প্রতি বছর শুকনাে মৌসুমে পাহাড়ের সব ছড়া যখন শুকিয়ে যায় এবং হ্রদের পানি যখন নিচে নেমে যায় তখন পানির তীব্র সমস্যা প্রবল আকার ধারণ করে ইউএনডিপিসহ অন্যান্য এনজিওগুলাে অন্য কর্মসুচী কমিয়ে পাবর্ত্য চট্টগ্রামে পানি সরবরাহের কাজে নিয়ােজিত থাকলে সমস্যা কিছুটা হলেও লাগব হতাে । সব চাইতে মারাত্মক আকার ধারন করেছে রােয়াংছড়ি উপজেলার সাংকিং খুমীপাড়ায় । সেখানকার অধিবাসিরা গ্রামছেড়ে অনত্র যাওয়ার চিন্তা ভাবনা করছে । বাঘাইছড়ি উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় ৩/৪ মাইল থেকে পানি এনে ব্যবহার করছে । খাগড়াছড়ি জেলার লক্ষীছড়ি উপজেলার সদরে ৩ নং ওয়াডের তুন্দ্রিলাপাড়া বৌদ্ধ বিহারে ১ হাজার মিটার দূর থেকে পানি এনে ব্যবহার করতেছে অনেক কষ্ট করে । দীঘিনালা উপজেলার ৪ টি পাড়ায় দীঘিনালা সেনা জোন পানি সরবরাহের ব্যবস্থা করলে সেখানকার জনগণের কিছুটা সমস্যা লাঘব হয়েছে । পার্বত্য চট্টগ্রামের বিভিন্ন সরকারী , বেসরকারী সংস্থা এবং এনজিও কর্তৃপক্ষ হাজার হাজার কোটি টাকা উন্নয়নের নামে খরছ করতেছে । বিভিন্ন অভিযােগ রয়েছে যে , জনগণের উপকারে আসেনা । এই ধরণের অনেক প্রকল্প নিয়ে ৯/৬ করতেছে । এসব প্রকল্পগুলাের বিষয়ে তদন্ত হওয়া দরকার । হাজার হাজার কোটি টাকা পানিতে ফেলে দেয়া হচ্ছে বলে অভিযােগ উঠেছে । জণগণের কাজে লাগে সেসব প্রকল্প নিয়ে কাজ করলে জণগণ উপকৃত হত । পানি সরবরাহের জন্য টিউবওয়েল ও গভির নলকূপ প্রকল্পগুলাে নিয়ে ব্যপক তদন্ত হওয়া দরকার । অন্যান্য সমস্যাগুলাের সাথে পানি সমস্যার দিকে জোর দিতে হবে । তাহলেই জণগণের উপরে আসবে । অহেতুক অপ্রয়ােজনীয় প্রকল্প হাতে নেয়া থেকে বিরত থাকা দরকার ।

এই পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা আইনত দন্ডণীয় অপরাধ।

Design & Developed BY Muktodhara Technology Ltd