শুক্রবার, ২৫ Jun ২০২১, ০৬:৪৩ পূর্বাহ্ন

রামগড়ে কিশোরী ধর্ষণ মামলার আসামী পলাতক

রামগড়ে কিশোরী ধর্ষণ মামলার আসামী পলাতক

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ খাগড়াছড়ি জেলার  রামগড়ে এক কিশোরীকে  ধর্ষণের ঘটনায় নিজেই বাদী হয়ে   থানায় ধর্ষণ মামলা করেছে।  খাগড়াছড়ির জেলার রামগড় উপজেলার  ৫নং পৌরওয়াডের চৌধুরী পাড়া এলাকার  রাহিম (১৫) পিতাঃ মো- নুরু নামে এক বখাটের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১৮ মে) ওই অন্তঃসত্ত্বা কিশোরীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য খাগড়াছড়ি জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

৫ মাসের অন্তঃসত্ত্বা কিশোরী অভিযোগ করে বলেন, আমাদের বাড়ী পার্শ্ববর্তী এবং বিবাদী রাহিম এর ছোট বোন আখী আমার বান্ধবী সেই সুবাদে তাদের বাড়ীতে প্রায় যাওয়া আসা হতো।  প্রতিদিনের ন্যায় ২ ডিসেম্বর ২০২০ইং সালে বিকাল আনুমানিক ৩ঘটিকায় বান্ধবীর খোঁজে তাদের বাড়ীতে যাই। বান্ধবী বাড়ীতে না থাকার সত্বেও  বিবাদী  মিথ্যা কথা বলে যে তার বোন আখী বাড়ীর ভিতরে রয়েছে । এ কথা শুনে সে  ঘরে প্রবেশ করলে সাথে সাথে বিবাদি রাহিম অসৎ উদ্দেশ্য  চরিত্র হরন  করার কু- মানসে দরজা বন্ধ করে এবং জোর পূর্বক খাটের উপর শোয়াইয়া বিভিন্ন প্রলোভনসহ ভয়ভীতি দেখিয়ে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। পরবর্তীত্বে  ধর্ষণের কথা কাউকে না বলার জন্য  তাকে  প্রলোভনসহ ভয়ভীতি দেখায়।

বাদী আরও বলেন, আমার মা ও বোন বিভিন্ন সময়ে নানার বাড়ীতে যাওয়া আসার সুবাদে সুযোগ বুঝে ঘরখালি থাকায় ১৫ এপ্রিল ২০২১ইং হতে বিভিন্ন সময়ে  আবার তাকে একা পেয়ে ধর্ষণ করে।  পরবর্তীত্বে ৫ মে ২০২১ইং  কিশোরীর অবস্থা খারাপ দেখে  তার মা ডাক্তারের স্বরনাপন্ন হওয়ার পর জানতে পারে যে সে ৫ মাসের অন্তঃসত্ত্বা। বিষয়টি এলাকায় বলাবলি হতে শুরু করে । পরে ডাক্তারী রিপোটসহ  রামগড় থানায় ধর্ষক রাহিমের বিরুদ্ধে মামলা করে বলে জানান।

রামগড় থানার অফিসার ইনচার্জ  মোহাম্মদ  সামসুজ্জামান  বলেন, ‘ধর্ষণের অভিযোগে ১৮মে ২০২১ইং রামগড় থানায় একটি মামলা  রুজু করা হয়েছে। ওই অন্তঃসত্ত্বা বাদীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এই পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা আইনত দন্ডণীয় অপরাধ।

Design & Developed BY Muktodhara Technology Ltd