মুক্তমত

ঝর্ণা ত্রিপুরা গুইমারা উপজেলার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত: এলাকাবাসিকে শুভেচ্ছা

খাগড়াছড়ির গুইমারা উপজেলার নির্বাচনের আ’লীগের মনোনিত ঝর্ণা ত্রিপুরা উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হওয়ায় এলাকাবাসীকে আন্তরিক অভিনন্দন জানান। বেসরকারিভাবে নির্বাচিত উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ফলাফল ঘোষণার পর ঝর্ণা ত্রিপুরা এই মুক্তমত প্রকাশ করেন, প্রথমে নিজ দল আ’লীগের সর্বস্তরের নেতৃবৃন্দের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি, নির্বাচনি প্রচারনাসহ যারা আমার পাশে ছিলেন তাদেরকেও আমার আন্তরিক শুভেচ্ছা। আমি শারীরিক অসুস্থতার কারণে দলীয় নেতৃবৃন্দের ...

বিস্তারিত »

পুন্য কান্তি ত্রিপুরা গুইমারা উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত: এলাকাবাসিকে শুভেচ্ছা

খাগড়াছড়ির গুইমারা উপজেলার নির্বাচনের পূন্য কান্তি ত্রিপুরা উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হওয়ায় এলাকাবাসীকে আন্তরিক অভিনন্দন জানান। বেসরকারিভাবে নির্বাচিত উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পূন্য কান্তি ত্রিপুরা ফলাফল ঘোষণার পর অভিমত প্রকাশ করেন, ‘অত্যন্ত শান্তিপুর্ণ ও অবাধ নিরপেক্ষভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ায় নব গঠিত নির্বাচন কমিশন, খাগড়াছড়ির জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার, রিটার্নিং অফিসারসহ নির্বাচনে দায়িত্বপালনকারি সকল কর্মকর্তা, আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় নিয়োজিত সকল সদস্যদের ...

বিস্তারিত »

গুইমারা উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে এলাকাবাসিকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানান

খাগড়াছড়ির গুইমারা উপজেলার নির্বাচনের উশ্যেপ্রু মারমা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হওয়ায় এলাকাবাসীকে আন্তরিক অভিনন্দন জানান। বেসরকারিভাবে নির্বাচিত চেয়ারম্যান উশ্যেপ্রু মারমা ফলাফল ঘোষণার পর অভিমত প্রকাশ করে বলেন, ‘অত্যন্ত শান্তিপুর্ণ ও অবাধ নিরপেক্ষভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ায় নব গঠিত নির্বাচন কমিশনকে ধন্যবাদ জানাই। সেই সঙ্গে খাগড়াছড়ির জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার, রিটার্নিং অফিসারসহ নির্বাচনে দায়িত্বপালনকারি সকল কর্মকর্তা, আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় নিয়োজিত সেনাবাহিনী, বিজিবি, ...

বিস্তারিত »

পার্বত্য চট্টগ্রামের রাজনীতিতে: ওয়াদুদ ভুইয়া

অসাধারণ নেতৃত্ব, অতুলনীয় ব্যক্তিত্ব, পার্বত্য চট্টগ্রামের মাটি ও মানুষের প্রিয় নেতা, পার্বত্য চট্টগ্রামের সিংহ পুরুষ, আধুনিক পার্বত্য চট্টগ্রামের রূপকার মাননীয় ওয়াদুদ ভুইয়া হলেন রাজনৈতিক নেতৃত্বের একটা প্যাকেজ (all in one) একের ভিতরে সব। এজন্য অনেকেই বলে থাকেন, ওয়াদুদ ভুইয়া নিজেই একটা “রাজনৈতিক প্রতিষ্ঠান”। এই অঞ্চলের মাটি ও মানুষের মনের শ্লোগান অনেকটা এরকম– ‘প্রথমত অদুদ ভাই, দ্বিতীয়ত অদুদ ভাই, তৃতীয়ত অদুদ ...

বিস্তারিত »

খাগড়াছড়ি উন্নয়ন ও সাফল্যের ৮ বছর (২০০৯-২০১৬) ….৪

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বাবু কংজরী চৌধুরী খগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ কর্তৃক ব্যাপক সাংস্কৃতিক উন্নয়ন কার্যাক্রম বাস্তবায়ন করেছে। পার্বত্য জনপদের ঐতিহ্যবাহী বৈসু, সাংগ্রাই, বিজু এবং বাংলা নববর্ষ বরন অনুষ্ঠান, শান্তিচুক্তির বর্ষপূর্তি, বিভিন্ন আর্ন্তজাতিক ও জাতীয় দিবস এবং অন্যান্য দিবসসমূহ বিভিন্ন কর্মসূচী গ্রহনের মাধমে বাস্তবায়িত হয়। খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ শিশু কিশোরদের মধ্যে প্রতিভা অন্বেষণের জন্য “শিশুদের সেরা কন্ঠ” প্রতিযোগিতাসহ ...

বিস্তারিত »

উন্নয়ন ও সাফল্যের ৮ বছর (২০০৯-২০১৬) ….৩

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বাবু কংজরী চৌধুরী খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নে ৫৬ কোটি ৩৩ লক্ষ ২১ হাজার টাকার উন্নয়ন কার্যক্রম বান্তবায়ন করা হয়েছে। এ খাতে জেলার যোগাযোগ সেক্টর, বিশেষতঃ উপজেলা পর্যায়ে বিভিন্ন সড়ক নির্মাণ,আরসিসি ড্রেইন, বিভিন্ন রাস্তায় ধারক দেওয়াল নির্মাণ, কালভর্ট/ব্রীজ নির্মাণসহ যাত্রী ছাউনী নির্মাণ করা হয়েছে। আর্থ- সামাজিকঃ খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের লক্ষ্যে খাতে ২৬টি ...

বিস্তারিত »

উন্নয়ন ও সাফল্যের ৮ বছর (২০০৯-২০১৬) ….২

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বাবু কংজরী চৌধুরী শান্তি চুক্তি বাস্তবায়নের অগ্রগতি : জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সুযোগ্য কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী থাকাকালীন ১৯৯৭ সালে ২রা ডিম্বের ঐতিহাসিক “পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তি” স্বাক্ষরিত হয়, যা “পার্বত্য শান্তিচুক্তি” নামে বহুল পরিচিত। এ চুক্তি সম্পাদনের ফলে বিগত শতকের আশি ও নব্বই এর দশকে পার্বত্য চট্টগ্রাম অঞ্চলে বিরাজিত পরিস্থিতির অবসান হয় ...

বিস্তারিত »

উন্নয়ন ও সাফল্যের ৮ বছর (২০০৯-২০১৬) ….১

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বাবু কংজরী চৌধুরী খাগড়াছড়ি জেলা ও দেশব্যাপি উন্নয়ন মেলা পরিচালনার উদ্দেশ্য হচ্ছে, মাননীয় জননেত্রী শেখ হাসিনা’র সরকারের উন্নয়ন কাজের সাথে সম্পৃত্ত হতে পারে। সরকারের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা, এমডিজি অর্জনে সরকারের সাফল্য প্রচার ও এসডিজি কার্যক্রমে জনগণকে উদ্বুদ্ধ করা, স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, রাজনৈতিক নেতৃবর্গ ও সরকারি কর্মকর্তাদের যৌথ অংশগ্রহণে স্থানীয় সমস্যা সম্পর্কে মতবিনিময় ও বাস্তবায়ন পরিকল্পনা এবং শেখ ...

বিস্তারিত »

জনগণকে জানাতে চাই : প্রসঙ্গ পার্বত্য চট্টগ্রাম-৩

♦ সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম, বীর প্রতীক বাঙালি বসতির সম্ভাব্য প্রেক্ষাপট আমরা আলোচনা করছিলাম, ১৯৭৬-৭৭-৭৮ এইরূপ সময়ের কথা। শান্তিবাহিনীর শুরু করে দেয়া সশস্ত্র বিদ্রোহ বা যুদ্ধ মোকাবেলার জন্য অন্যতম পদক্ষেপ ছিল সেনাবাহিনী, বিডিআর, পুলিশ ইত্যাদি আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী মোতায়েন। এসব বাহিনীকে একযোগে আমরা নিরাপত্তা বাহিনী (সিকিউরিটি ফোর্সেস) বলতে পারি। নিরাপত্তা বাহিনী, বিশেষত সেনাবাহিনী মোতায়েনের পর দেখা গেল- ওইখানে পরিবেশ একান্তই বৈরী, ...

বিস্তারিত »

বাঙালি পার্বত্য চট্টগ্রাম থেকে সমতলে ফিরবে না

মেজর জেনারেল আ. ল. ম. ফজলুর রহমান আমি এখানে পশু রাজ সিংহকে সিম্বলিক অর্থে এনেছি শক্তির প্রতিক হিসেবে। এই শক্তি পশু শক্তি। এই শক্তি জাগ্রত হলে সবকিছু লন্ডভন্ড করে দেয়। হিতাহিত জ্ঞান শুন্য হয়ে পড়ে শক্তির ধারক ও বাহকরা। এই পশুশক্তিকে যারা অহেতুক খোঁচাখুঁচি করে জাগিয়ে তোলে পশুশক্তির ধারকের চেয়ে যে এই শক্তিকে খোঁচা দিয়ে জাগ্রত করে ক্ষতি তার বেশী ...

বিস্তারিত »