শনিবার, ২২ জানুয়ারী ২০২২, ০৩:৩২ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
অবৈধভাবে বালু উত্তোলন বন্ধে নীতিমালা হচ্ছে… ৬ ফেব্রুয়ারী পর্যন্ত বন্ধ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান অবৈধ ইটভাটা বন্ধের নিদের্শ পুলিশের অভিযানে পেটের ভেতর ইয়াবাহসহ ৩জন আটক মানিকছড়ি-লক্ষ্মীছড়ি সড়কে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশে ট্রাক গাছে নিয়ন্ত্রণহীন ট্রাকের ধাক্কা: বাবা-ছেলের মৃত্যু খাগড়াছড়ি ইউনিট কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড এর সভা বার বার জরিমানা করার পরও থামছে না অবৈধভাবে বালু উত্তোলন ও মাটিকাটা মহালছড়িতে সেনাবাহিনী ও খাগড়াছড়ি লেডিস ক্লাবের উদ্যোগে শীতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরণ মানিকছড়িতে জেলা পরিষদের উদ্যোগে ক্রীয়া সামগ্রী বিতরণ
গুইমারায় মুজিব বর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া আকর্ষনীয় ঘর পেয়ে আনন্দিত

গুইমারায় মুজিব বর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া আকর্ষনীয় ঘর পেয়ে আনন্দিত

নুরুল আলম: খাগড়াছড়ি জেলার গুইমারা উপজেলায় ২০২০-২০২১ অর্থ বছরে আশ্রায়ন প্রকল্পের মাধ্যমে “মুজিব শতবর্ষে” ভূমিহীন ও গৃহহীন ক ও খ শ্রেণীর পরিবার পুনবার্সনে “মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ অগ্রাধিকার প্রকল্প গৃহহীনদের জন্য গৃহ নির্মান কর্মসূচীর আওতায় সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী পর্যায়ক্রমে  মোট ১৬৪ টি ঘর নির্মাণ শেষে সুফল ভোগীদের সম্পূর্ণরূপে বুঝাইয়া দেয়ার প্রক্রিয়া বর্তমানে শেষ পর্যায়ে। পর্যায়ক্রমে আরো হতদরিদ্র ও অসহায় পরিবারকে দেওয়া হবে এ আশ্রায়ন।

গুইমারা সদর ইউনিয়ন চেয়ারম্যান সুইজাইউ মারমার সাথে ২০২০-২০২১ অর্থ বছরে আশ্রায়ন প্রকল্পের ঘরের ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি জানান, সদর ইউনিয়নের সকল পাড়া মহল্লার গৃহহীনদের মাঝে  পর্যায়ক্রমে ঘর নির্মান শেষে অধিকাংশ ঘর বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে এবং অবশিষ্ট ঘর গুলির কাজ সমাপ্ত হলে খুব শীঘ্রই বুঝিয়ে দেওয়া হবে।

সিন্দুকছড়ি ইউনিয়ন চেয়ারম্যান রেদাক মারমা বলেন, ঘর নির্মান কাজ শেষে গৃহহীনদের ঘর বুঝিয়ে দেওয়া প্রায় শেষ পর্যায়ে। নির্মাণ কাজ খুব সুন্দর ভাবে করা হয়েছে।

হাফছড়ি ইউনিয়ন চেয়ারম্যান চাইথোয়াই চৌধুরী বলেন, গৃহহীনদের জন্য প্রাপ্ত ঘর গুলোর অধিকাংশ্ ঘর গৃহহীনদের মাঝে বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে যারা এখনো বুঝে পায়নি তাদের দ্রুত বুঝিয়ে দেওয়া হবে। গৃহহীনেরা ঘর বুঝে পেয়ে সন্তুষ্ট। তি্নি আরও যানান যে, একটি কুচক্রি মহল সাধারন জনগনের মনে ঘর না পাওয়ার বিষয়ে বিভ্রান্তি ছরাচ্ছেন, এসব বিভ্রান্তি থেকে সাধারন জনগনকে ধোকায় না পড়ার আহব্বান যানান ‍তিনি।

গুইমারা উপজেলার ৩টি ইউনিয়নের গৃহহীন এসব পুর্নবাসিত সুফলভোগী পরিবারগুলি আশ্রায়ন প্রকল্পের ঘর গুলো পেয়ে খুবই আনন্দিত হয়েছেন এবং প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।

এসব গৃহহীনদের পুনর্বাসনের ব্যাপরে ও উল্লেখিত প্রধানমন্ত্রীর দেয়া নির্মিত ঘরগুলি সর্ম্পকে গুইমারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তুষার আহমেদ বলেন, তাঁর জানামতে গুইমারা উপজেলায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ অগ্রাধিকার প্রকল্প গৃহহীনদের জন্য গৃহ নির্মাণ প্রকল্পের ঘরগুলির নির্মাণ কাজ সুষ্ঠুভাবে হচ্ছে। এসব গৃহহীন পুর্নবাসিত পরিবারগুলিতে বর্তমানে বিরাজ করছে আনন্দ ঘন পরিবেশ।

 

এই পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা আইনত দন্ডণীয় অপরাধ।

Design & Developed BY Muktodhara Technology Ltd