রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ০৯:৩৫ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
“প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দশটি বিশেষ উদ্যোগ মানুষের আর্থ- সামাজিক উন্নয়নের মূল হাতিয়ার “ কাপ্তাই লেকে বিদ্যুৎ উৎপাদন সর্বনিন্মে, ধসের আশঙ্কা বিজিবি রামগড় জোনের উদ্যোগে ২ শতাধিক মানুষকে বিনামূল্যে চিকিৎসাসেবা প্রদান খাগড়াছড়িতে প্রমিলা ফুটবল টুর্নামেন্ট’র উদ্বোধন হতদরিদ্রদের মাঝে বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবায় ২৩ বিজিবি রামগড়ের শতবর্ষী এসডিও বাংলো ঘিরে নির্মাণ হচ্ছে শিশু বিনোদন পার্ক পাহাড়ে শান্ত পরিবেশ ফিরে এসেছে:পার্বত্যমন্ত্রী বীর বাহাদুর রামগড়ে কিশোরের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার নানিয়ারচরে জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের সম্মেলন পার্বত্য চট্রগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রী বীরবাহাদুর উশৈসিং বাঙ্গালহালিয়া সফর বিভিন্ন উন্নয়ন মূলক উদ্ধােধন করবেন
“কিশোরী গণধর্ষনের মামলায় খাগড়াছড়িতে দু’জনের যাবজ্জীবন”

“কিশোরী গণধর্ষনের মামলায় খাগড়াছড়িতে দু’জনের যাবজ্জীবন”

আল-মামুন, খাগড়াছড়ি:: খাগড়াছড়িতে ১৭ বছর বয়সী এক কিশোরীকে গণধর্ষনের মামলায় দুইজনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদন্ড দিয়েছে বিচারীক আদালত। একই সাথে তাদের ১০ লক্ষ টাকা করে অর্থদন্ড দেয়া হয় তাদের। উক্ত অর্থ ভিকটিমের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ বাবদ দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয় রায়ে।

বৃহষ্পতিবার(২৪ মার্চ) দুপুরে খাগড়াছড়ির নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল এর বিচারক মুহাং আবু তাহের এই রায় ঘোষনা করেন। সাজাপ্রাপ্ত আসামীরা হলেন,খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গা উপজেলার কাঠালবাগান এলাকার হানিফ হাওলাদারের ছেলে রেজাউল হাওলাদার(৩৭) ও একই এলাকার মৃত জামাল মিয়ার ছেলে মোঃ সাবু মিয়া(৩৫)। রায় ঘোষনার সময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন আসামীরা।

জানা যায়, ২০১৬সালের ১৭ এপ্রিল খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গায় আসামী সাবু মিয়ার বাগানবাড়ীতে সাবু মিয়া এবং রেজাউল ওই কিশোরী(১৭)র হাত মুখ বেঁধে জোরপূর্বক পালাক্রমে ধর্ষণ করে। ঘটনার কিছু দিন পর ভিকটিম লজ্জা অপমান সইতে না পেরে গায়ে কেরোসি ঢেলে আত্মহত্যার চেষ্টা করে।

পরবর্তীতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। এই ঘটনায় ভিকটিমের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা দায়েরের পর যুক্তি তর্ক উপস্থাপান শেষে আদালত দুইজনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ডের রায় দেন। একই সাথে প্রত্যেকে ১০ লক্ষ টাকা করে অর্থদন্ড প্রদান করা হয়। জরিমানাকৃত অর্থ ঘটনায় নিহত ভিকটিমের পরিবারকে দেয়ারও নির্দেশ দেয়া হয়।

এ রায়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছে রাষ্ট্রপক্ষের আইজীবি (পিপি) এডভোকেট বিধান কানুনগো। তিনি বলেন,এমন রায় সমাজে দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে। অপরাধীরা এমন অপরাধে আর সাহস পাবে না। প্রতিষ্ঠিত হবে আইনের শাসন।

 

 

এই পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা আইনত দন্ডণীয় অপরাধ।

Design & Developed BY Muktodhara Technology Ltd