শিরোনাম
ইলেকট্রিক মিস্ত্রী নাসিরের উপর গুলির প্রতিবাদে মানববন্ধন দীঘিনালায় পিসিপির র‌্যালি ও ছাত্র সমাবেশ আর্ন্তজাতিক মাতৃ ভাষা দিবসে ফুল দিয়ে ভাষা শহিদদের শ্রদ্ধা নিবেদন করেন গুইমারা প্রেসক্লাব খাগড়াছড়িতে মহান শহীদ ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত গুইমারাতে ইয়াবাসহ আটক-২ বাস-পিকআপ ভ্যানের সংঘর্ষে খাগড়াছড়িতে নিহত দুই পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরাকে খাগড়াছড়িতে নাগরিক সংবর্ধনা গুইমারায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে “বই পাঠ” উৎসব অনুষ্ঠিত পানছড়িতে সন্ত্রাসীদের গুলিতে যুবক গুলিবিদ্ধ প্রধান শিক্ষকহীন মাটিরাঙ্গা মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, পাঠদান ব্যাহত

রাজস্থলী ইউএনও শান্তনু কুমার দাশকে বিদায় ও সংর্বধণা অনুষ্ঠিত

Reporter Name

চাইথোযাইমং মারমা রাজস্থলী (রাঙ্গামাটি):: চোখে ছিলো পানি, তবুও স্নিগ্ধ হাসি দিয়ে সহকর্মী ও উপজেলার সকলের কাছ থেকে বিদায় নিলেন ইউএনও শান্তনু কুমার দাশ । শুক্রবার (৮ ডিসেম্বর) বিকাল ৩ টায় রাজস্থলী উপজেলাপরিষদ চেয়ারম্যান বাসভবন থেকে বিদায় বেলায় দেখা গেলো এমন হৃদয় বিদারক চিত্র।এ বিদায় শেষ বিদায় নয়,সামযিক বিদায় দিচ্ছি। চাকুরী কর্মের জীবনে বিভিন্ন গন্তব্যস্থান চলে যেতে হবে এটা নিয়মনীতি স্বাভাবিক।

বিদায় কালে ইউএনও শান্তনু কুমার দাশ বলেন, ভালো থাকুক রাজস্থলী উপজেলার প্রতিটি মানুষ। আমার কর্মজীবনে সেরা সঞ্চয় পেয়েছি আপনাদের ভালোবাসা। সরকারি চাকুরিজীবী হিসেবে বদলিজনিত কারণে কোন জেলায় বা উপজেলায় স্থায়ী হওয়ার সুযোগ নেই প্রশাসনিক কর্মকর্তাদের। উপজেলায় কর্মরত অবস্থায় সহকর্মী,সাংবাদিক, জনপ্রতিনিধি, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দের অনেক রকমের সহয়তা আমি পেয়েছি। কাজ আদায় করার জন্য হয়তো কারো বিরাগভাজন হয়েছি। অনেক সময় ইতিবাচক আবার কখনো নেতিবাচক ভাবে মানুষকে উপস্থাপন করা হয়। খোলা চোখ দিয়ে সবকিছু দেখা যায় না। চোখের আড়ালেও অনেক কিছু থাকে। তবে নিজের অজান্তেও যদি কাউকে কষ্ট দিয়ে থাকি, কারো প্রতি অন্যায় করে থাকি তাহলে আমি ক্ষমাপ্রার্থী।

বিদায়বেলায় উপস্থিত বেশির ভাগ মানুষের চোখেই ছিলো জল। আবেগ থামাতে না পেরে কেঁদে ফেলেন অতিথি অনেকেই। তৈরি হয় এক আবেগঘন পরিবেশ। বলা যায় তিনি কখনো সরকারি কর্মকর্তা হিসেবে কাজ করেননি। তিনি সকলকে নিজের আপন মানুষ ভেবে কাজ করেছেনে এবং সেটা সবার চোখেও পড়েছে।

বক্তব্যকালে উপজেলা চেয়ারম্যান উবাচ মারমা বলেন, অনাবিল, সুখ-শান্তিতে সমৃদ্ধ হোক আপনার পারিবারিক জীবন, আপনি দীর্ঘজীবী হোন, সুস্বাস্থ্য ও সমৃদ্ধিতে পৌঁছে যান কাঙ্খিত গন্তব্যে, এই আমার আন্তরিক চাওয়া কর্মের জীবন বটে।

বিদায়ী কালে অন্যানের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সিনিয়র সহকারি পুলিশ সুপার রাজস্থলী সার্কেল সাইকুল ইসলাম, ভাইস চেয়ারম্যান অংনুচিং মারমা, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান উসচিন মারমা, অফিসার ইনচার্জ জাকির হোসেন, ডা, রুইহলাঅং মারমা, কৃষি সম্প্রসারন কর্মকর্তা, আবুল খায়ের সহ বিভিন্ন বিভাগের কর্মকর্তা, কর্মচারী, রাজনৈতিক, সাংবাদিক ও ইউনিয়ন পরিষদের মেম্বার চেয়ারম্যানগণ স্থানীয় সমাজ সেবকগণরা উপস্থিত ছিলেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ
© 2019, All rights reserved.
Developed by Raytahost
error: Content is protected !!